Latest news

মোরেলগঞ্জে আদম ব্যাপারীর খপ্পড়ে সর্বস্বান্ত আটটি পরিবার

মঙ্গলবার, ১৩ এপ্রিল ২০২১ | ১:১২ পিএম | 95 বার

মে ২০২১
রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি
« এপ্রিল    
 
১০১১১২১৩১৪১৫
১৬১৭১৮১৯২০২১২২
২৩২৪২৫২৬২৭২৮২৯
৩০৩১  
মোরেলগঞ্জে আদম ব্যাপারীর খপ্পড়ে সর্বস্বান্ত আটটি পরিবার

বাগেরহাটের মোরেলগঞ্জে প্রতারক আদম ব্যাপারীর খপ্পড়ে পড়েআটটি পরিবার সর্বস্বান্ত হওয়ার উপক্রম হয়েছে। এ ঘটনায় আদালতে মামলা দায়ের করেছেন ক্ষতিগ্রস্থ পরিবারের সদস্যরা।

মামলার নথি ও এলাকাবাসী সূত্রে জানা যায়, ২০২০ সালে বিদেশ পাঠানোর কথা বলে মোরেলগঞ্জ উপজেলার পাঁচগাও গ্রামের আব্দুল কুদ্দুস হাওলাদার ছেলে আদম ব্যবসায়ী সাইমুম ইসলাম রাকিব, ছাপড়াখালির হারুনর রশিদ হাওলাদার ছেলে নাদিম হোসেন সৈকত ৫ লাখ টাকা৪৩হাজার টাকা, রমজান আলী ৯দেড় লাখ টাকা, রুবেলআকন ৪ লাখ টাকা,মনোয়ারা ২লাখ ,জসিম ৬লাখ,আব্দুল্লাহ ৪লাখ,আসাদুল ৬ লাখ,এবং মিলন শিকদার ৩লাখ,টাকা নেন।
দীর্ঘদিনেও বিদেশ পাঠাতে না পারায় কিছুদিন আগে ভূক্তভোগীরাসাইমুম ইসলাম রাকিব কাছে টাকা ফেরত চান। কিন্তু তিনি টাকা না দিয়ে নানা রকম ছলনার আশ্রয় নেন এবং এক পর্যায়ে টাকা ফেরত দিতে অস্বীকৃতি জানান। একদিকে বিদেশ যেতে না পারা, অপরদিকে জমি বিক্রি বা বন্ধক রেখে, সমিতি থেকে ঋণ এবং ধারদেনা করে দেয়া টাকা ফেরত না পাওয়ায় বর্তমানে তাদের নিঃস্ব হওয়ার উপক্রম হয়েছে।

এ ব্যাপারে সাইমুম ইসলাম রাকিবকে আসামী করে প্রতারিতনাদিম হোসেন সৈকত বাদী হয়ে কোর্টে মামলা করেছেন।মামলা-৪৩/২১

ক্ষতিগ্রস্থ নাদিম হোসেন সৈকত জানান, আমাকে বিদেশ পাঠানোর জন্য জমি বন্ধক রেখে ও সমিতি থেকে ঋণ নিয়ে আদম ব্যাপারীকে টাকা দিয়েছি। দীর্ঘ ৭ বছরেও বিদেশ পাঠাতে পারেনি। আবার টাকা ফেরত না দেয়ায় জমিও ছাড়াতে পারছি না। বর্তমানে আমার একেবারে পথে বসার উপক্রম হয়েছে। আদম ব্যাপারী সাইমুম ইসলাম রাকিব অন্য মামলায় জেলে থাকায় তার বক্তব্য নেয়া সম্ভব হয়নি।

মোরেলগঞ্জে মাদ্রাসা ছাত্রী নিয়ে অনলাইন পত্রিকায় প্রকাশিত মিথ্যা সংবাদের প্রতিবাদ নিন্দা জানিয়েছে ভূক্তভোগী পরিবার

২০১১-২০১৬ | কোনো সংবাদ বা ছবি অন্য কোথাও প্রকাশ করবেন না

Development: Zahidit.Com

ঘোষনাঃ
Translate »